আজ : শুক্রবার | ১লা পৌষ, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ | ১৫ই ডিসেম্বর, ২০১৭ ইং | ২৭শে রবিউল-আউয়াল, ১৪৩৯ হিজরী

নদ-নদীসমূহে পানি বাড়ছে : বন্যার আশংকা

1499793433_13এডিটর ডেস্ক : দেশের নদ-নদীসমুহে পানি বাড়ছে। আগামী ৭২ ঘন্টায় যমুনা ও ব্রহ্মপুত্রের পানি ১ মিটার পর্যন্ত বাড়তে পারে। অপরদিকে গঙ্গা-পদ্মা নদীর পানি বৃদ্ধি অব্যাহত থাকলেও তা বর্তমানে বিপদসীমার ১ দশমিক ৫-২ মিটার নিচ দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে।

পানি বাড়ার এই প্রবণতায় পানি উন্নয়ন বোর্ডের (পাউবি)বন্যা পূর্বভাস ও সতর্কীকরণ কেন্দ্র বন্যার আশংকা করছে। আজ পাউবি’র বন্যা পূর্বাভাস ও সতর্কীকরণ কেন্দের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, বাংলাদেশের উজানের তিনটি অববাহিকায় (গঙ্গা, ব্রহ্মপুত্র এবং মেঘনা) মৌসুমী বায়ু সক্রিয় থাকার ফলে বিগত তিনদিন থেকে মাঝারী থেকে ভারী বৃষ্টিপাত হচ্ছে। ফল এই অববাহিকার নদীসমূহের ভারতীয় অংশে এবং বাংলাদেশের অভ্যন্তরে পানি বৃদ্ধি পাচ্ছে।

এতে বলা হয়, বিগত ২৪ ঘণ্টায় ব্রহ্মপুত্র-যমুনা নদীর ভারতীয় অংশে গড়ে ৭০ থেকে ৮০ সেন্টিমিটার এবং বাংলাদেশ অংশে ৫৫ সেন্টিমিন্টার, গঙ্গা-পদ্মা নদীর ভারতীয় অংশে ১৬ সেন্টিমিটার. ও বাংলাদেশ অংশে ১৫ সেন্টিমিটার এবং মেঘনা অববাহিকায় গড়ে ১ মিটার করে পানি বৃদ্ধি পেয়েছে। মেঘনা অববাহিকায় প্রধান-প্রধান নদীর পানি বৃদ্ধি পেয়ে বিপদসীমার উপর দিয়ে প্রবাহিত হওয়ায় নিম্নাঞ্চলসহ বাঁধের বাইরে নদীর পার্শবর্তী এলাকা প্লাবিত হয়েছে, যা আগামী ২৪ ঘণ্টায় অবনতিশীল থাকবে বলেও বিজ্ঞপ্তিতে উল্লেখ করা হয়।

দেশের বিভিন্ন নদ-নদীর পানি ৯০টি সমতল স্টেশনের পর্যবেক্ষণ অনুযায়ী ৮১টি পয়েন্টের পানি বৃদ্ধি পেয়েছে, হ্রাস পেয়েছে ৬টির এবং ২টি পয়েন্টের পানি অপরিবর্তিত রয়েছে। একটি পয়েন্টের কোন তথ্য পাওয়া যায়নি।

আজ শনিবার সকাল ৯টা পর্যন্ত গত ২৪ ঘন্টায় ৯০টি পানি সমতল স্টেশনের পর্যবেক্ষণ অনুযায়ী ১৭ পয়েন্টের পানি বিপদ সীমার উপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। এ সময় ১৬টি পয়েন্টে ১০০ মি.লি.এবং ৩৮টি পয়েন্টে ৫০ মি.লি. এর উপরে বৃষ্টিপাত রেকর্ড করা হয়েছে। নদ-নদীর পরিস্থিতি সম্পর্কে বন্যা পূর্বাভাস ও সতর্কীরণ কেন্দ্রের অপর এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ কথা জানানো হয়েছে।

আগামী ২৪ ঘন্টায় সুরমা-কুশিয়ারা নদীর পানি সমতল বৃদ্ধি অব্যাহত থাকতে পারে বলে বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়। শুক্রার সকাল ৯টা থেকে শনিবার সকাল ৯টা পর্যন্ত ২৪ ঘন্টায় সুনামগঞ্জে ২০৫মি.লি. দিনাজপুরে ১৮৭ মি.লি. ডালিয়ায় ১৮৬ মি.লি. এবং ময়মনসিংহে ১৮২ মি.লি. বৃষ্টিপাত রেকর্ড করা হয়েছে। এ সময় পর্যন্ত মনু নদীর মনু রেলওয়ে ব্রীজের পয়েন্টে ৩৬৮ সে.মি, খোয়াই নদীর বাল্লা পয়েন্টে ২২১ সে. মি, খ্য়োাই নদীর হবিগঞ্জ পয়েন্টে ৪৭০ সে.মি,ধলাই নদীর কমলগঞ্জ পয়েন্টে ২৭৮ সে.মি. এবং ভুগাই নদীর নাকুয়াগাও পয়েন্টে ৩২০ সে.মি পানি বৃদ্ধি পায়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো সংবাদ