আজ : শুক্রবার | ১লা পৌষ, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ | ১৫ই ডিসেম্বর, ২০১৭ ইং | ২৭শে রবিউল-আউয়াল, ১৪৩৯ হিজরী

“রাসূল সা. এর আদর্শ থেকে দূরে, তাই বিশ্বব্যাপী এ বিপর্যয়”

jhjএডিটর ডেস্ক : দাওয়াতুন্নবী (সা.) উপলক্ষে ২দিনব্যাপী জাতীয় তাফসিরুল কুরআন মাহফিলের প্রথম দিন আজ বিকেলে ঐতিহাসিক সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে অনুষ্টিত হয়। অধ্যক্ষ হাফেজ মাওলানা শেখ ফজলে বারী মাসউদ এর সভাপতিত্বে মাহফিলে প্রধান অতিথির বয়ান পেশ করেন পীরে কামেল অধ্যক্ষ হাফেজ মাওলানা ইউনুছ আহমাদ।

প্রধান অতিথি তাঁর বয়ানে বলেন- আল্লাহ তা’য়ালা গোটা মানব জাতিকে লক্ষ্য করে বলেছেন, আল্লাহর রাসূল সা. এর মাঝে রয়েছে তোমাদের জন্য উত্তম আদর্শ। অথচ অত্যন্ত দুঃখের বিষয় আমরা আজ আল্লাহর এ বাণী ভুলে গিয়ে রাসূলের আদর্শকে ছেড়ে বিজাতীয় আদর্শ রীতি-নীতি গ্রহণ করেছি এবং রাসূলের আদর্শকে পূর্ণমাত্রায় পরিত্যাগ করে আমাদের ইচ্ছে মত জীবন পরিচালনা করছি। যার ফলে গোটা বিশ্বব্যাপী আমরা বিপর্যয়, সংকট ও দুঃখ-দুর্দশায় নিপতিত। মুক্তির নানা চেষ্টা করা হচ্ছে। কিন্তু মুক্তির পরিবর্তে দিন দিন সংকট আরো ঘণীভূত হচ্ছে। বিদায় নিচ্ছে মানব সভ্যতা।

মুসলমান জাতি আজ সারা বিশ্বে নির্যাতিত-নিপীড়িত। অত্যন্ত নির্মমভাবে তাদের প্রতি চলছে নিপীড়ন। এসব সংকট ও নিপীড়নের হাত থেকে মুক্তির একমাত্র রাস্তা আল্লাহর রাসূলের আদর্শের অনুসরণ। রাসূলের আদর্শের অনুকরণের মাধ্যমেই মানব জাতি কেবল মুক্তি পেতে পারে। অন্য কোনো পথ ও পন্থায় মানব জাতির ইহলৌকিক ও পরলৌকিক মুক্তি ও কল্যাণ আদৌ সম্ভব না।

মাহফিলে বিশেষ অতিথির বয়ান পেশ করেন মুফতি সৈয়দ ইসহাক মুহাম্মদ আবুর খায়ের (সাহেবজাদা, পীর সাহেব চরমোনাই রহ.), শায়েখ যাকারিয়া ইসলামিক রিসার্চ সেন্টারের মহাপরিচালক মুফতি মিজানুর রহমান সাঈদ।

বিশেষ অতিথির বয়ানে মুফতি মিজানুর রহমান সাঈদ বলেন, আল্লাহর রাসূল সা. বলেছেন, যতোদিন তোমরা কুরআন ও সুন্নাহ আঁকড়ে থাকবে ততোদিন তোমাদের পতন ও বিপর্যয় হবে না। আজ আমরা এ দুটোই ছেড়ে দিয়েছি বিধায় সারা বিশ্বে আজ মুসলমানদের চরম দুর্দিন বিরাজ করছে। এর থেকে পরিত্রাণের একটাই রাস্তা, তা হলো- কুরআন ও সুন্নাহকে আমাদের শক্তভাবে আঁকড়ে ধরতে হবে।

মুফতি সৈয়দ ইসহাক মুহাম্মদ আবুল খায়ের বলেন, মুসলিম জাতি রাসূল সা. এর সুন্নাহ ও দাওয়াতকে ছেড়ে দেয়ার দরুন আজ বিশ্বব্যাপী বিশেষভাবে মুসলমানের কঠিন পরিস্থিরির সম্মুখীন হতে হয়েছে। রাসূলের সুন্নাহ ও দাওয়াতকে যদি আমরা পূর্ণমাত্রায় গ্রহণ করতে না পারি তা হলে আদৌ আমাদের সফলতা আসবে না। তাই আমাদের রাসূলের আদর্শ, সুন্নাহ ও দাওয়াতের অনুকরণ আমাদের সকলের জন্য একান্ত অপরিহার্য। তা না হলে দিন দিন আমরা আরো খারাপ পরিস্থিতির সম্মুখীন হবো।

মাহফিলে অন্যান্যদের মাঝে উপস্থিত ছিলেন, অধ্যাপক মাওলানা এটিএম হেমায়েত উদ্দিন, মাওলানা ইমতিয়াজ আলম, শায়খুল হাদীস মাওলানা মকবুল হোসাইন, আলহাজ্ব আব্দুর রহমান, আলহাজ্ব হারুন অর রশিদ, মাওলানা এবিএম জাকারিয়া, মুহাম্মদ মোশাররফ হোসেন প্রমুখ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো সংবাদ